বিজ্ঞাপন


‘গল্পের সময়’ বিজ্ঞাপন 

বাংলার হাজার হাজার পত্র-পত্রিকার মত ‘গল্পের সময়’ও একটি লিটল ম্যাগাজিন। কাগজ ও কালিতে ছাপার বদলে এর বিচরণ অর্ন্তজালে,পার্থক্যটা এখানেই। অনান্য লিটল মাগাজিনের মতই বেঁচে থাকতে,পথ চলার রসদ জোগাতে  বিজ্ঞাপন গ্রহন করবে ‘গল্পের সময়’।তবে সচেতনভাবে জ্যোতিষ, তন্ত্রমন্ত্র,লোক ঠকানো বা ধাপ্পাবাজির কোনও বিজ্ঞাপন প্রকাশ করা হবে না এই পত্রিকার পাতায়।

………………………

ভাল গল্পের ডালি নিয়ে অর্ন্তজালে ভেসে ভেসে বহু মানুষের কাছে পৌঁছোতে চায় ‘গল্পের সময়’। আমাদের সঙ্গী হয়ে আপনার প্রতিষ্ঠান,প্রকাশন সংস্থা,ব্যক্তিগত বই বা অন্য কোনও উদ্যোগের বিজ্ঞাপন অনেকের কাছে পৌঁছে দিতে পারেন আপনি। বানিজ্যিক প্রকাশন সংস্থার মিনিট সেকেন্ডের টাইমফ্রেম বা স্কোয়ার-সেন্টিমিটারের চোখরাঙানি নেই। গোটা মাস/বছর ধরে ২৪X৭ লাইভ রাখুন আপনার বিজ্ঞাপন।

………………………..

আকাশছোঁয়া মূল্য নয়, নামমাত্র খরচে বিজ্ঞাপন দেওয়ার সুযোগ থাকছে গল্পের সময়ে। বিজ্ঞাপন দিন সরাসরি ওয়েব লিঙ্ক অথবা তৈরি পেজ-এর মাধ্যমে। আরও বিস্তারিত জানতে চলে আসুন আমাদের বিজ্ঞাপনের পাতায়। প্রয়োজনে মেল করুন galpersamay@gmail.com এ।

………………………..

গল্পের সময় বিজ্ঞাপনের হার 

 

প্রথম পাতায় বক্স বিজ্ঞাপন(তৈরি পেজ) – এক মাস ২৪x৭ লাইভ – ৫০০ টাকা

প্রথম পাতায় বক্স বিজ্ঞাপন(তৈরি পেজ) – ছয় মাস ২৪x৭ লাইভ – ২৭৫০ টাকা(২৫০ টাকা ছাড়)

প্রথম পাতায় বক্স বিজ্ঞাপন(তৈরি পেজ) – এক বছর ২৪x৭ লাইভ -৫০০০ টাকা (১০০০ টাকা ছাড়)

বিজ্ঞাপনের পেজ তৈরি করে দিলে বাড়তি (এককালীন) ২০০ টাকা

 

…………………….

ভিতরে বক্স (তৈরি পেজ)/সব পাতায়  ফিক্সড – এক মাস ২৪x৭ লাইভ – ১০০০ টাকা

ভিতরে বক্স (তৈরি পেজ)/সব পাতায়  ফিক্সড – ছয় মাস  ২৪x৭ লাইভ – ৫৫০০ টাকা (৫০০ টাকা ছাড়)

ভিতরে বক্স (তৈরি পেজ)/সব পাতায়  ফিক্সড – এক বছর ২৪x৭ লাইভ –১০০০০ টাকা (২০০০ টাকা ছাড়)

বিজ্ঞাপনের পেজ তৈরি করে দিলে বাড়তি (এককালীন) ২০০ টাকা

 

………………………

প্রথম পাতায় বক্স+ভিতরে বক্স (তৈরি পেজ)/ফিক্সড – এক মাস ২৪x৭ লাইভ – ১৩০০ টাকা

প্রথম পাতায় বক্স+ভিতরে বক্স (তৈরি পেজ)/ফিক্সড – ছয় মাস  ২৪x৭ লাইভ – ৭১৫০ টাকা(৬৫০ টাকা ছাড়)

প্রথম পাতায় বক্স+ভিতরে বক্স (তৈরি পেজ)/ফিক্সড – এক বছর ২৪x৭ লাইভ – ১৩০০০ টাকা(২৬০০ টাকা ছাড়) 

বিজ্ঞাপনের পেজ তৈরি করে দিলে বাড়তি (এককালীন) ২০০ টাকা

 

———————————

কাগজ, TV-র থেকে এগিয়ে Digital Media

বাংলা yourstory.com এর একটা প্রতিবেদন

DECEMBER 17, 2016

 

ডিজিটাল মিডিয়ার যুগ দুনিয়াব্যাপী ছড়িয়ে পড়ছে। ভারতও সেই স্রোতে ভাসছে। বিজ্ঞাপনদাতাদের একাংশও এখন ঝুঁকেছেন ডিজিটাল নিডিয়ার দিকে। খবরের কাগজ এখন প্রাচীন সংবাদ মাধ্যম। ১৮৭০ সালে ভারতে বেঙ্গল গেজেট নামে প্রথম সংবাদপত্রটি প্রকাশিত হয়। এরপর ১৯২৭ সালে রেডিও পরিষেবা চালু হয়। ৯০-এর দশকে এ দেশে প্রবেশ একটির পর একটি টিভি চ্যানেলের। আর এখন চলছে ডিজিটাল মিডিয়ার যুগ। ব্যাপারটা একরকম বিপ্লবের মতোনই।

এর পাশাপাশি পাল্টে যাচ্ছে মিডিয়ার সম্পর্কে সামগ্রিক ধ্যানধারণাও। এখন আপনার মুঠোয় একটি স্মার্টফোন থাকলেই আপনি বিনোদন থেকে খবরাখবর – সবই পেয়ে যেতে পারেন।

পরিসংখ্যান অনুসারে দেখা যাচ্ছে, ভারতে মোট মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৩৭৭ মিলিয়ন। চলতি বছরের জুন পর্যন্ত যে হিসাব পাওয়া গিয়েছে সেই অনুযায়ী, সারা দেশে স্মার্টফোনের মালিক রয়েছেন ২২০ মিলিয়ন। ২০২০ সালের ভিতর এই সংখ্যাটা বেড়ে দাঁড়াবে ৫০০ মিলিয়নে।

স্মার্টফোন বা স্মার্টফোনের সঙ্গে সংযুক্ত ইন্টারনেট পরিষেবার সুযোগ নিচ্ছেন এ দেশের নবীন প্রজন্মের একটা বড় অংশ। পরিসংখ্যান জানাচ্ছে, ১৬ থেকে ৩০ বছর বয়স্ক ভারতবাসীদের একটি বড় অংশ দিনে ২ ঘন্টা ২০ মিনিট মতো স্মার্টফোনের নেট পরিষেবা ব্যবহার করে থাকেন। অন্যদিকে, ৪৫ থেকে ৬৫ বছর বয়স্ক নাগরিকদে্র একটি ব়ড় অংশ দৈনিক ১ ঘণ্টা ৫০ মিনিট এই পরিষেবা ব্যবহার করে থাকেন। থ্রি জি এবং ফোর জি পরিষেবা স্বল্পখরচে নেলার জন্যেই ডিজিটাল মাধ্যম এত দ্রুত গতিতে প্রসারিত হচ্ছে বলে মনে করা হচ্ছে।

অন্যদিকে, ভারত তো বটেই সারা বিশ্বজুড়েই এখন ডিজিটাল মিডিয়ার স্টার্ট আপগুলিতে বিনিয়োগের আগ্রহ বাড়ছে। ইউরোপ, আমেরিকাতেও পুরনো ঘরানার মিডিয়া নির্ভরতা ছেড়ে মানুষজন ডিজিটাল নিডিয়ার দিকে ঝুঁকছেন। ভারতও এখন তার শরিক।

ভারতে এই বিপ্লবাত্মক গতিকে আরও দ্রুতগানী করে তুলতে সম্প্রতি উল্লেখযোগ্য ভূমিকা নিয়েছে রিলায়েন্সের জিও পরিষেবা। তুলনায় স্বল্পখরচের জিও পরিষেবা ক্রমাগত ব্যাপকহারে জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। আগামী কয়েক বছরের ভিতর ডিজিটাল মিডিয়ার ক্ষেত্রে বিজ্ঞাপনদাতাদের হার অন্ততপক্ষে ২০ শতাংশ বাড়তে পারে বলে অনুমান করা হচ্ছে।

 

 

 




  • খোঁজ করুন

  • কোটেশন ব্লগ

  • পুরানো সংখ্যা




  • আমাদের ফেসবুক পেজ

  • কিছু গুরুত্বপূর্ণ লিঙ্ক

  • যোগাযোগ


    email:galpersamay@gmail.com

    Your message has been sent. Thank you!

    গল্পের সময় পরিবার
    সমীর
    অগ্নীশ্বর
    দেবাশিস
    চিন্ময়
    পার্থ
    মিতালি
    জাগরণ
    দেবব্রত

    © 2016 গল্পের সময়। ডিজাইন করেছেন অগ্নীশ্বর। নামাঙ্কন করেছেন পার্থ।